পোস্টগুলি

সময়ের কথা

যেতে যেতে সময় বলে যায় কতনা কথা প্রযুক্তির কল্যাণে হারিয়েছে পুরোনো প্রথা।  মুঠোফোনে ভুলেছে মানুষ, চিঠিপত্র লেখা হারানো চিঠি স্মৃতিতে, বারবার ফিরে দেখা। হাজার  মানুষের পথচলা ,পথের ধারে সে একা সময়ের খোলসে রপ বদলায়  ,তাকে ভুলে থাকা। হলুদ খাম,পোস্টকার্ডে লেখা  ,আবেগের ঝুলি প্রীতি, শুভেচ্ছা, ভালোবাসার গুপ্ত কথার  বুলি। ফোন কল মেসেজে প্রাণের স্পর্শ ঠিকানাহীন  অস্তিত্বের পরিচয় হারিয়ে ডাকবাক্স জনহীন। আধুনিকতার ছোঁয়ায়, মোবাইলটা পেলো  হাতে , ছোট এক যন্ত্রে কথা বলা আপনজনের সাথে ।   নতুন আলোয় সময় হারায় ,নীল আলো দুচোখে দ্রুত এগিয়ে যায় , ব্যস্ত জীবন মোবাইল নেটওয়ার্কে। সময়ের ছব্দবেশে ,পুরোনো রীতিনীতি মুখোশে ঢাকা পড়ে, পৃথিবীকে পায় হাতের মুঠোয়, আধুনিক বিজ্ঞানকে সঙ্গী করে।

বেনাম ভালোবাসা

কি ভুলের মাশুল দিয়ে চলে যাও অমন করে ফিরে এসো  একটি বার, যেওনা তুমি আমায় ছেড়ে ভালোবাসার একগুচ্ছ গোলাপ  রয়েছে তোমার পথ চেয়ে হৃদয়ের খাতায়  নামটি লেখা ভালাবাসার সবটুকু  দিয়ে  রাগ অভিমানে ভালোবাসায় না জানে কত দিতে হয় দাম ঝরা ফুলের পাপড়ি মত ঝরে ভালোবাসা রয়ে যায় পথে বেনাম।

ছন্দহীন জীবন

 উদ্বেগ, আতঙ্ক  ছাড়াই  বেড়িয়ে পরা রোজ লাগামছাড়া,হৈ  হুল্লোড় পেটপুরে  ভুরিভোজ জনঅরণ্যে র সমুদ্রে জোয়ার এসেছে বর্ষবরণের আনন্দ স্রোতে গা ভাসায় ,জন্মিলে মরিতে হবে ভয়  কিসের।    পথে পরে থাকে  অজস্র স্মৃতি দুঃখ বেদনার কষ্ট অজ্ঞানতার অন্ধকারে পৃথিবীর চেহেরা  অস্পষ্ট।  বেনাম অতিথি কড়া নাড়ে , অজানা ভয় মনে জাগে উপহারে বেদনার ছবি,  দমকা  হাওয়া ঝড়ের বেগে। হাসি কান্নার শব্দে নিঃশব্দে, সময় বয়ে যায়,কর্মে অটল ঘন মেঘে আঁধার ঢাকে, মিটমিটিয়ে চায়, মিষ্টি তারার দল।

শৈশব স্মৃতি

শৈশবের স্মৃতিতে কতনা স্মৃতিচারণ সময়ের স্রোতে স্মৃতিপটে, হয় আগমন। রূপোর মত  চকচকে সাদা, ছোট সুটকেস ছোট ছোট হাতে হেলেদুলে চলতো সে বেশ। ব‌ই খাতা পেন্সিল ভরে, ছুটতো স্কুল ভ্রমনে আজ শুধু স্মৃতির তালিকায় ,হৃদয়ের এককোনে। আমাদের শৈশব ছিলো বড়‌ই ভালো ,রেখেছি বেঁধে নতুন প্রজন্মে শৈশব হারায় ,ব‌ই ভর্তি ব্যাগ কাঁধে।

ভালোবেসে

ভালোবেসে ধরেছি হাত ,ছেড়ে দেবো বলে নয় কত কথা জমেছে হৃদয়ে , ভালোবাসা চেয়ে রয়। অপেক্ষায় আজ শব্দরা হারিয়েছে , ভালোবাসি  তোমায় পারিনি বলতে। হৃদয়ে যখন  উঠে ঝড়  রাতের  নির্জনে মন চায়  একাকি পথ হারাতে।  ভুলেছো কি  তুমি  আমায় , প্রতিজ্ঞাবদ্ধ  সে  রাত পারো যদি করো ক্ষমা, সকল বাঁধন খুলে মুক্ত হোক  আমাদের চলার  পথ। থেকো না  আর মুখটি ভার করে  ,সাজে না তোমার  ওই মুখে, সব ভুলে চলো  আবার নতুন করে পথ চলি  , র‌ইবো ভালোবেসে সুখে দুঃখে।‍

বিজ্ঞানের সৃষ্টি

হারিয়ে গেলাম তোমার মাঝে,  কাটলো অবসাদ পেলাম নতুন করে ,জীবনের‌ অজানা  এক  স্বাদ। আধুনিকতার ছোঁয়ায়, মোবাইলটা এলো  হাতে , ছোট এক যন্ত্রে কথা বলা আপনজনের সাথে ।  বিজ্ঞানের সৃষ্টি, অবাক হোলাম তোমায়  দেখে ব্যস্ত সময় হারালো ,মোবাইলের নীল আলো দুচোখে। সময়ের নতুন পরিবর্তনে ,তোমায় করেছে একঘরা দামী  স্মার্টফোন , সকলের হাতে  করে  ঘোরাফেরা।

আশার আলো

জন্মটা অভাবে, শৈশব হারিয়ে যায় পথে পথে ঘুরে কেটে যায় সারাদিন চাওয়া পাওয়া থাকে না মনে   দু  মুঠো  খেয়ে জীবন যাপন। সোনার চামচ মুখে নিয়ে  কেও বা জন্মে অট্টালিকায় ফুটপাতে জন্ম হয়ে,জীবন কাটে  পথের ধারে, অনাহারে অসহায়। মানুষ জীবন ধন্য,ধনী গরীব ভেদাভেদ মানুষ দোষ দেয় আপন ভাগ্যকে থাকেনা   পিছনে পরে গরীব বলে  স্বপ্ন নিয়ে এগিয়ে যায় লেখাপড়া শিখে।  বড় মানুষ হয় একদিন  প্রাণপণ চেষ্টায় ইচ্ছায় কি না হয় দারিদ্রতা হেরে যায় শিক্ষায়।